Saturday, December 19, 2015

Children sleep on the ground

Children sleep on the ground

Working women sitting on the ground
Here are distressed when they asked -
"That's why you're photographing?
We are poor.
I'm in trouble.
The government finances will help us? '
I could not answer their questions.
I thought how could change the poor working class women?
Representatives of society at the core event might actually change their fate.
The women worked in vegetable gardening.
Picture of the situation at the time was a little rest .
Get the daily wage of Tk 120
This money is very low compared to the daily needs.
Regrets that one of the women said,
"This money is not enough for the family."
We are poor people, so under compulsion is less than Taka to work. "
The land owners who earn millions each year by growing vegetables.
How many hours a day laborer in agriculture, the owner will be able to work and
How much would you pay for labor per hour of labor, there is no explicit law.
I see a child sleeping on the ground due to negligence.
Higher winter levels.
The women working at home does not have enough winter clothes.
If the child could not sleep properly at night due to the cold.
Now, in the heat of the sun in the morning after sleeping on the ground, getting a little comfort.
I feel sorry for the child is sleeping on the ground.
I asked - "Is the child sleeping.
The child's mother said, -
"He's very young, so I have been to.
A little before fallen asleep. "
The mother called the child!
But the child was sleep.
I think the pain felt compassion for the child.
Searched for solace in this thought,
His mother must be feeling more sympathy for him than me.
And that's the hard work during the day,
How is the child's mother fell asleep thinking?
I think my kind Allah
Children sleep on the ground with your favorite son of Adam.
Babgla

মাটির শিশু মাটিতে ঘুমায়

মাঠে বসে আছেন শ্রমজীবী গরীব মহিলা গণ
এখানে এলে তারা ব্যাকুল হয়ে জিজ্ঞাসা করলেন,-
‘আপনি ছবি তুলছেন কেন?
আমরা গরীব।
কষ্ঠে আছি।
সরকার কি আমাদের আর্থিক সাহায্য করবেন ?’
আমি তাদের ব্যকুল প্রশ্নের উত্তর দিতে পারিনি।
ভাবলাম এই অসহায় শ্রমজীবী মহিলাদের কিভাবে পরিবর্তন হতে পারে?
বিষয়টি সমাজ সেবী জন প্রতিনিধিদের নজরে আসলে হয়তো তাদের ভগ্যের পরিবর্তন হতে পারে।
এই মহিলারা সবজি বাগান পরিচর্যার কাজ করেন।
ছবি তোলার সময় কাজের ফাকে একটু বিশ্রাম করছিলেন।।
দৈনিক পারিশ্রমিক পান ১২০ টাকা
এই টাকা দৈনন্দিন প্রয়োজনের তুলনায় খুব কম।
মহিলাদের আক্ষেপ করে বলেন যে,
‘ এই টাকায় সংসার চলে না।’
গরীব মানুষ তাই নিরুপায় হয়ে কাজ করতে হয়।’
অন্যদিকে জমির মালিকগণ প্রতি বছর সবজি চাষ করে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করেন।
বাংলাদেশে কৃষিকাজের জন্য মালিক একজন শ্রমিককে দৈনিক কতো ঘন্টা কাজ করতে পারবে এবং
শ্রমিকদের ঘন্টাপ্রতি শ্রমের জন্য কতো টাকা দিতে হবে তার কোন সুনিদৃষ্ট আইন নেই।
দেখতে পেলাম পাশে মাটিতে অবহেলায় একটি শিশু ঘুমাচ্ছে ।
এখন শীতের মাত্রা বেশী।
এই শ্রমজীবী মহিলাদের ঘরে যথেষ্ঠ শীত বস্র নেই।
শীতের কারণে শিশুটি হয়তো রাতে ঠিকমতো ঘুমাতে পারিনি।
এখন সকালের রোদে একটু আরাম পেয়ে মাটিতে পরে ঘুমাচ্ছে।
মাটিতে ঘুমন্ত শিশুটির জন্য আমার মনে দুঃখ হলো ।
আমি জিজ্ঞাসা করলাম –‘শিশুটি কি ঘুমাচ্ছে’।
শিশুটির মা বলল,-
‘সে খুব ছোট,তাই সাথে করে নিয়ে এসেছি।
একটু আগে ঘুমিয়ে পড়েছে।’
মাটি শিশুটিকে ডাকলো!
কিন্তু শিশুটি ঘুমাতেই থাকলো।
শিশুটির জন্য মায়া হলো আর মনে বেদনা অনুভব করলাম।
এই ভেবে সান্তনা খুঁজলাম যে,
শিশুটির প্রতি দরদ আমার চেয়ে তার মার দরদ নিশ্চই বেশী।
আর যে মায়ের পরিশ্রমে সময় যায় সারা দিন,
সন্তান কোথায় কিভাবে ঘুমাল তা ভাবার মায়ের অবসর কোথায় ?
মনে মনে বললাম হে  দয়াল আল্লাহ-
আপনার প্রিয় আদম সন্তান মাটির শিশু মাটিতে ঘুমায়।

Saturday, December 19, 2015

Children sleep on the ground

Children sleep on the ground

Working women sitting on the ground
Here are distressed when they asked -
"That's why you're photographing?
We are poor.
I'm in trouble.
The government finances will help us? '
I could not answer their questions.
I thought how could change the poor working class women?
Representatives of society at the core event might actually change their fate.
The women worked in vegetable gardening.
Picture of the situation at the time was a little rest .
Get the daily wage of Tk 120
This money is very low compared to the daily needs.
Regrets that one of the women said,
"This money is not enough for the family."
We are poor people, so under compulsion is less than Taka to work. "
The land owners who earn millions each year by growing vegetables.
How many hours a day laborer in agriculture, the owner will be able to work and
How much would you pay for labor per hour of labor, there is no explicit law.
I see a child sleeping on the ground due to negligence.
Higher winter levels.
The women working at home does not have enough winter clothes.
If the child could not sleep properly at night due to the cold.
Now, in the heat of the sun in the morning after sleeping on the ground, getting a little comfort.
I feel sorry for the child is sleeping on the ground.
I asked - "Is the child sleeping.
The child's mother said, -
"He's very young, so I have been to.
A little before fallen asleep. "
The mother called the child!
But the child was sleep.
I think the pain felt compassion for the child.
Searched for solace in this thought,
His mother must be feeling more sympathy for him than me.
And that's the hard work during the day,
How is the child's mother fell asleep thinking?
I think my kind Allah
Children sleep on the ground with your favorite son of Adam.
Babgla

মাটির শিশু মাটিতে ঘুমায়

মাঠে বসে আছেন শ্রমজীবী গরীব মহিলা গণ
এখানে এলে তারা ব্যাকুল হয়ে জিজ্ঞাসা করলেন,-
‘আপনি ছবি তুলছেন কেন?
আমরা গরীব।
কষ্ঠে আছি।
সরকার কি আমাদের আর্থিক সাহায্য করবেন ?’
আমি তাদের ব্যকুল প্রশ্নের উত্তর দিতে পারিনি।
ভাবলাম এই অসহায় শ্রমজীবী মহিলাদের কিভাবে পরিবর্তন হতে পারে?
বিষয়টি সমাজ সেবী জন প্রতিনিধিদের নজরে আসলে হয়তো তাদের ভগ্যের পরিবর্তন হতে পারে।
এই মহিলারা সবজি বাগান পরিচর্যার কাজ করেন।
ছবি তোলার সময় কাজের ফাকে একটু বিশ্রাম করছিলেন।।
দৈনিক পারিশ্রমিক পান ১২০ টাকা
এই টাকা দৈনন্দিন প্রয়োজনের তুলনায় খুব কম।
মহিলাদের আক্ষেপ করে বলেন যে,
‘ এই টাকায় সংসার চলে না।’
গরীব মানুষ তাই নিরুপায় হয়ে কাজ করতে হয়।’
অন্যদিকে জমির মালিকগণ প্রতি বছর সবজি চাষ করে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করেন।
বাংলাদেশে কৃষিকাজের জন্য মালিক একজন শ্রমিককে দৈনিক কতো ঘন্টা কাজ করতে পারবে এবং
শ্রমিকদের ঘন্টাপ্রতি শ্রমের জন্য কতো টাকা দিতে হবে তার কোন সুনিদৃষ্ট আইন নেই।
দেখতে পেলাম পাশে মাটিতে অবহেলায় একটি শিশু ঘুমাচ্ছে ।
এখন শীতের মাত্রা বেশী।
এই শ্রমজীবী মহিলাদের ঘরে যথেষ্ঠ শীত বস্র নেই।
শীতের কারণে শিশুটি হয়তো রাতে ঠিকমতো ঘুমাতে পারিনি।
এখন সকালের রোদে একটু আরাম পেয়ে মাটিতে পরে ঘুমাচ্ছে।
মাটিতে ঘুমন্ত শিশুটির জন্য আমার মনে দুঃখ হলো ।
আমি জিজ্ঞাসা করলাম –‘শিশুটি কি ঘুমাচ্ছে’।
শিশুটির মা বলল,-
‘সে খুব ছোট,তাই সাথে করে নিয়ে এসেছি।
একটু আগে ঘুমিয়ে পড়েছে।’
মাটি শিশুটিকে ডাকলো!
কিন্তু শিশুটি ঘুমাতেই থাকলো।
শিশুটির জন্য মায়া হলো আর মনে বেদনা অনুভব করলাম।
এই ভেবে সান্তনা খুঁজলাম যে,
শিশুটির প্রতি দরদ আমার চেয়ে তার মার দরদ নিশ্চই বেশী।
আর যে মায়ের পরিশ্রমে সময় যায় সারা দিন,
সন্তান কোথায় কিভাবে ঘুমাল তা ভাবার মায়ের অবসর কোথায় ?
মনে মনে বললাম হে  দয়াল আল্লাহ-
আপনার প্রিয় আদম সন্তান মাটির শিশু মাটিতে ঘুমায়।