Tuesday, October 13, 2015

পিঁপড়া খেয়ে বেঁচে ছিলেন ছয় দিন ! Six days survived by eating ants!

ছয় দিন ধরে নিখোঁজ থাকা এক ব্যক্তিকে আজ মঙ্গলবার অস্ট্রেলিয়ার দুর্গম এক মরু এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। তিনি কালো পিঁপড়া খেয়ে ছয় দিন বেঁচে ছিলেন ।
বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে জানানো হয়, উদ্ধার হওয়া ব্যক্তির (৬২) নাম রেগ ফগারডি। তিনি ৭ অক্টোবর শিকারের উদ্দেশে বের হয়ে নিখোঁজ হন। ফগারডির খোঁজ না পেয়ে তাঁর পরিবারের সদস্যরা বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে জানান। পুলিশ অনুসন্ধান শুরু করে। নিখোঁজ হওয়ার স্থান থেকে ১৫ কিলোমিটার দূরে তাঁকে পাওয়া যায়।

পুলিশ কর্মকর্তা অ্যান্ডি গ্রেটউড বলেন, ফগারডির কাছে কোনো পানি ছিল না। তিনি কালো পিঁপড়া খাচ্ছিলেন। এভাবেই তিনি বেঁচে ছিলেন ছয় দিন।জায়গাটি ছিল দুর্গম এবং মরুভূমিসম। প্রচণ্ড রকমের অস্বস্থিকর  তপ্ত। সেখানে কোন মানুষেরর পক্ষে পানি ছাড়া ছয়দিন বেঁচে থাকা সম্ভব নয়।
 উদ্ধারের সময় নিখোঁজ  ফগারডি  মারাত্মক পানিশূন্যতায় ভুগছিলেন।পানির অভাবে পিপাসায় তার  মতিভ্রমও হয়ে গিয়েছিল। তাঁকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। তিনি এখন সুস্থ, বসছেন, কথা বলছেন।



Tuesday, October 13, 2015

পিঁপড়া খেয়ে বেঁচে ছিলেন ছয় দিন ! Six days survived by eating ants!

ছয় দিন ধরে নিখোঁজ থাকা এক ব্যক্তিকে আজ মঙ্গলবার অস্ট্রেলিয়ার দুর্গম এক মরু এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। তিনি কালো পিঁপড়া খেয়ে ছয় দিন বেঁচে ছিলেন ।
বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে জানানো হয়, উদ্ধার হওয়া ব্যক্তির (৬২) নাম রেগ ফগারডি। তিনি ৭ অক্টোবর শিকারের উদ্দেশে বের হয়ে নিখোঁজ হন। ফগারডির খোঁজ না পেয়ে তাঁর পরিবারের সদস্যরা বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে জানান। পুলিশ অনুসন্ধান শুরু করে। নিখোঁজ হওয়ার স্থান থেকে ১৫ কিলোমিটার দূরে তাঁকে পাওয়া যায়।

পুলিশ কর্মকর্তা অ্যান্ডি গ্রেটউড বলেন, ফগারডির কাছে কোনো পানি ছিল না। তিনি কালো পিঁপড়া খাচ্ছিলেন। এভাবেই তিনি বেঁচে ছিলেন ছয় দিন।জায়গাটি ছিল দুর্গম এবং মরুভূমিসম। প্রচণ্ড রকমের অস্বস্থিকর  তপ্ত। সেখানে কোন মানুষেরর পক্ষে পানি ছাড়া ছয়দিন বেঁচে থাকা সম্ভব নয়।
 উদ্ধারের সময় নিখোঁজ  ফগারডি  মারাত্মক পানিশূন্যতায় ভুগছিলেন।পানির অভাবে পিপাসায় তার  মতিভ্রমও হয়ে গিয়েছিল। তাঁকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। তিনি এখন সুস্থ, বসছেন, কথা বলছেন।